কুড়িগ্রামে ১ ঘণ্টায় ৭ লাখ গাছের চারা রোপণ

এ বি সিদ্দিক, কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি : ‘সবুজ ও পরিচ্ছন্ন রাজারহাট গড়ি’ স্লোগানে কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ১ ঘণ্টায় ৭ লাখ গাছের চারা রোপণ করা হয়েছে। আজ বুধবার সকালে উপজেলার ৭ ইউনিয়নে ৬৩ প্রজাতির ফলদ, বনজ ও ঔষুধি গাছের চারা লাগানো হয়। রাজারজাটের হেলিপ্যাড মাঠে এ কর্মসূচির উদ্বোধন করেন রংপুর বিভাগীয় কমিশনার কাজী হাসান আহমেদ।
বৃক্ষরোপণ কর্মসূচিতে উপজেলার ৭ ইউনিয়নে ১০৫টি দল কাজ করেছে। ১ লাখ ৫ হাজার মানুষ ও বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রায় ৪০ হাজার শিক্ষার্থী এ কর্মসূচিতে অংশ নেয়। রাজারহাট উপজেলার সব সড়ক, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানসহ বিভিন্ন অফিস চত্বরে একযোগে এসব গাছের চারা রোপন করা হয়।

রাজারহাট মীর ইসমাইল হোসেন ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ মো. সফিকুল ইসলাম জানান, এটা একটা মহৎ উদ্যোগ। এতে করে এ উপজেলায় পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষা হবে বলে আমি মনে করি। রাজারহাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, উপজেলা সদর ইউনিয়নসহ ৭টি ইউনিয়নের প্রতি ইউনিয়নে ১ লাখ করে গাছের চারা রোপণ করা হয়েছে। উপজেলা প্রশাসনসহ বিভিন্ন ব্যক্তির উদ্যোগে পার্শ্ববর্তী জেলা থেকে ৫ লাখ গাছের চারা সংগ্রহ করা হয়েছে। আর ২ লাখ চারা নিজেরাই উৎপাদন করেছেন বলে জানান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা।

- বিজ্ঞাপন -

কুড়িগ্রামের জেলা প্রশাসক আবু ছালেহ মো. ফেরদৌস খান জানান, রাজারহাট উপজেলার রাস্তাগুলোর বিভিন্ন পয়েন্টে ভলান্টিয়ারদের সহযোগিতায় ৭ লাখ গাছের চারা লাগানো সম্ভব হয়েছে। এতে শিক্ষার্থী, মুক্তিযোদ্ধা, স্কুল-কলেজের শিক্ষকসহ সর্বস্তরের মানুষ সহযোগিতা করেছেন। ৬৩ প্রজাতির বিভিন্ন গাছের চারা রোপণ করা হয়েছে। রংপুর বিভাগীয় কমিশনার কাজী হাসান আহমেদ বলেন, একটি উপজেলায় ১ ঘণ্টায় ৭ লাখ গাছের চারা লাগানো দেশের জন্য দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে।

অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- রংপুর বিভাগীয় বন কর্মকর্তা বিকাশ চন্দ্র, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মেনহাজুল ইসলাম, রাজারহাট উপজেলা চেয়ারম্যান আবুল হাশেম প্রমুখ।