Bhorer Kagoj logo
ঢাকা, বুধবার, ১৯শে ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং | ৫ই পৌষ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | ১০ই রবিউস-সানি, ১৪৪০ হিজরী

সাত বছর পর টনি ডায়েস


প্রকাশঃ ২৫-০৮-২০১৬, ৪:৩৯ অপরাহ্ণ | সম্পাদনাঃ ২৫-০৮-২০১৬, ৪:৩৯ অপরাহ্ণ

uPG6tJ8mNOtBকাগজ বিনোদন প্রতিবেদক: দীর্ঘ সাত বছর ধরে এক সময়ের জনপ্রিয় অভিনেতা টনি ডায়েস সপরিবার নিয়ে নিউইয়ার্কে বসবাস করছেন।

তবে বিদেশে পাড়ি দেয়ার আগে তিনি নারগিস আকতারের ‌‌‌‘পৌষ মাসের পিরিত’ ছবিতে অভিনয় করেছিলেন। আর সে ছবিটি নানা সমস্যার কারণে মুক্তি পায়নি। তবে সমস্যার পর্ব চুকিয়ে আগামী ২ সেপ্টেম্বর প্রেক্ষাগ্রহে আসছে।

বুধবার সন্ধ্যায় সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন পরিচালক নারগিস আকতার। অনুষ্ঠানে ছবির শিল্পীরা উপস্থিত থাকলেও ছবির নায়ক টনি ডায়েস এবং নায়িকা পপি ছিলেন অনুপস্থিত।

অবশ্য তথ্য প্রযুক্তির এই যুগে স্বশরীরে উপস্থিত না থাকলেও সুদূর মার্কিন মুলুকে নিজ বাসা থেকে স্কাইপিতে সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত হন টনি ডায়েস। এবং সংবাদ সম্মেলনে সবার সঙ্গে ‘পৌষ মাসের পিরিত’ ছবির কাজের অভিজ্ঞতার কথা বলেন।

ছবিটি প্রসঙ্গে টনি ডায়েস বলেন, আমেরিকায় পাড়ি জমানোর ঠিক আগে ছবিতে কাজ করি। অনেক মিষ্টি মধুর স্মৃতি জড়িয়ে আছে ছবিটির সঙ্গে।

1HU2Rk9p8byC“যশোরের খাজুরা নামক একটি এলাকায় ছবির কাজ করেছিলাম। সেটা আবার হাড়কাঁপানো শীতের সময়। শুটিং সেটে হাজির হতাম ভোর ৪টায়। সে কারণে রাত ৩টায় উঠে রেডি হতাম। এভাবে অনেকদিন সেখানে কনকনে শীতের মধ্যে কাজ করি। দৃশ্যগুলো আজও চোখে ভাসছে।”

স্কাইপি আলাপে টনি ডায়েস আরো বলেন, নারগিস আপা আমার বড় বোনের মতো। তার নির্মাণে ‘মেঘের কোলে রোদ’ ছবিতে কাজ করেছি। যেটা ছিল আমার অভিনয় ক্যারিয়ার জীবনের অন্যতম সফল একটি কাজ। তিনি চমৎকার একজন মানুষ। নির্মাতা হিসেবেও দারুণ মেধাবী। আমি দেশে না থেকেও ছবিটির প্রচারণায় স্কাইপিতে অংশ নিতে পেরে এতে খুব ভালো লাগছে।

বাংলাদেশকে নিয়ে স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে জিনপ্রিয় এ অভিনেতা বলেন, খুব মনে পড়ে বাংলাদেশকে। নিজের জন্মস্থান বলে কথা। কিন্তু আমেরিকায় প্রথম প্রথম মানিয়ে নিতে একটু কষ্ট হলেও এখন আর কিছু হয় না। তার কারণ হলো আমার কাছে আমেরিকাও অনেকটা ঢাকার মতো মনে হয়।

“আমার পরিবারের সবাই এবং আমার স্ত্রী প্রিয়ার পরিবারের সবাই এখানে থাকে। তাই এখন আর মনে হয় না আমি বিদেশে আছি। চাকরি, সংসার, পরিবার নিয়ে ভালোই আছি। তবে সবকিছুর পরেও প্রিয় মাতৃভূমিকে মিস করি। হয়তো আগামী জানুয়ারি মাসের ছুটিতে বাংলাদেশে বেড়াতে আসবো। সবার সঙ্গে কথা হবে।”

টনি ডায়েস আমেরিকাতে একটি বেসরকারি ফার্মের ম্যানেজমেন্ট ডিভিশনে কর্মরত আছেন। ২০০৮ সালের শেষের দিকে বাংলাদেশ ছেড়ে যান তিনি। ২০১২ সালে সর্বশেষ বাংলাদেশের নাটকে অভিনয় তিনি।



পাঠকের মতামত...

Top