চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন : ১৩ বিশিষ্ট নাগরিককে একুশে সম্মাননা স্মারক ও সাহিত্য পুরস্কার প্রদান

মঙ্গলবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৬

চট্টগ্রাম অফিস : শিক্ষা-সংস্কৃতি, সমাজসেবা-ক্রীড়াসহ সমাজের বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবদান রাখার জন্য চট্টগ্রামের ৭ বিশিষ্ট নাগরিককে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন একুশে সম্মাননা স্মারক এবং সাহিত্যের বিভিন্নœ ক্ষেত্রে অবদানের জন্য ৬ জনকে সাহিত্য পুরস্কার ও সংবর্ধনা দেয়া হয় চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের পক্ষ থেকে। গত রোববার সন্ধ্যায় চট্টগ্রাম নগরীর মুসলিম ইনস্টিটিউট হল প্রাঙ্গণে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের বইমেলার একুশ মঞ্চে এ সম্মাননা দেন সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিন।

সম্মাননা অনুষ্ঠানে মেয়র আ জ ম নাছির বলেন, ক্ষুদ্র প্রকাশকদের জন্যও আগামী দিনে সহযোগিতার উদ্যোগ গ্রহণ করা হবে। এবার আঞ্চলিকতাকে পরিহার করে উদার দৃষ্টিভঙ্গির মাধ্যমে সার্বজনীন বইমেলার উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। বহু বছর ধরে বইমেলা চলে এলেও এবারের আঙ্গিক ও পরিসর ভিন্নমাত্রা পেয়েছে। তিনি বলেন, পরিকল্পনা আছে ঢাকার প্রকাশনী সংস্থা এবং চট্টগামসহ সারা দেশের প্রকাশনা সংস্থা, লেখক ও পাঠকদের সমন্বিত করে নতুন আঙ্গিকে বইমেলা আয়োজন করার।

অনুষ্ঠানে একুশ পদকপ্রাপ্ত ও সাহিত্য পুরস্কারপ্রাপ্ত ১৩ জনের মধ্যে সবাই তাদের অনুভূতি ব্যক্ত করেন। অনুভূতি প্রকাশকালে তারা লেখালেখির কর্মকাণ্ডে অবাধ স্বাধীনতা চান। তারা মুক্তিযুদ্ধের চেতনাভিত্তিক কার্যক্রমকে উৎসাহিত করতে চান। এবার চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন শিক্ষায় প্রফেসর রওশন আক্তার হানিফ (মরণোত্তর), ক্রীড়ায় প্রকৌশলী মাহমুদুল ইসলাম (মরণোত্তর), সাংবাদিকতায় আ জ ম ওমর (মরণোত্তর), সমাজসেবায় সাবেক চেয়ারম্যান ফজল করিম (মরনোত্তর), শিক্ষা বিস্তারে সাবেক কমিশনার আলহাজ মোহাম্মদ জাকারিয়া, মুক্তিযুদ্ধ ও স্বাধীনতাযুদ্ধে সিরু বাঙালি এবং সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব অরুণ চন্দ্র বণিককে মহান একুশে স্মারক সম্মাননা পদক এবং সাহিত্যের বিভিন্নœ অঙ্গনে অবদানের জন্য কামরুজ্জামান জাহাঙ্গীর (মরণোত্তর) কবিতায় ফাউজুল কবির, শিশু সাহিত্যে রাশেদ রউফ, বিশ্বসাহিত্যে খুরশিদ আনোয়ার, প্রবন্ধে হাফিজ রশিদ খান ও গবেষণায় নুর মোহাম্মদ রফিককে সাহিত্য সম্মাননা পুরস্কার দেয়া হয়।

অনুষ্ঠানে প্রফেসর রওশন আক্তার হানিফের পক্ষে পদক গ্রহণ করেন তার ছোট ভাই প্রফেসর ডা. মাহমুদ এ চৌধুরী আরজু, প্রকৌশলী মাহমুদুল ইসলামের পক্ষে তার ছেলে মহিউল ইসলাম, সাংবাদিকতায় আ জ ম ওমরের পক্ষে

তার স্ত্রী সৈয়দা জমিলা বেগম, সমাজসেবায় সাবেক চেয়ারম্যান ফজল করিমের পক্ষে তার স্ত্রী রওশন আরা, কথাসাহিত্যে কামরুজ্জামান জাহাঙ্গীরের পক্ষে তার স্ত্রী নারগিস নাহার, পদক ও পুরস্কার গ্রহণ করেন। অন্যরা সশরীরে উপস্থিত হয়ে পদক ও পুরস্কার গ্রহণ করেন।

আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস ও অমর একুশে বইমেলা কমিটির আহ্বায়ক কাউন্সিলর নাজমুল হক ডিউকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত পদক ও সাহিত্য পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন- কাউন্সিলর মোরশেদ আক্তার চৌধুরী, কাউন্সিলর ফারজানা পারভিন, প্রধান শিক্ষা কর্মকর্তা নাজিয়া শিরিন, কবি ও ছড়াকার মোহাম্মদ মঞ্জুরুল ইসলাম (মানজুর মাহমুদ), চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি এজাজ ইউসুফী, কবি অরুন দাশ গুপ্ত, কাউন্সিলর শফিউল আলম, হাসান মুরাদ বিপ্লব, কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী মোহাম্মদ শফিউল আলম, সচিব রশিদ আহমদ প্রমুখ।

শেষ পাতা'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj