অদৃশ্য চুম্বন : নজমুল হেলাল

সোমবার, ৪ জুলাই ২০১৬

সেদিন সকালেই বলেছিলাম তুমি চলে যাও

অথচ তুমি রয়ে গেলে আজও

তোমার দিকে হাত বাড়ানো যায় তাড়ানো যায় না কেন?

আমি সেদিন বের করে ফেলে দিতে চাচ্ছিলাম

একটা ট্যাক্সিক্যাবে সসম্মানে বসিয়ে

তোমার পৈতৃক ঠিকানায় পাঠাতে

অথচ তুমিও থেকে যাচ্ছো বলেই হয়তো

বুঝাই যায় না যেন তুমি কতটা জরুরি বাতাস

এ নির্বোধ আমাদের নিকট!!

এভাবেই সংসারে কতকিছুই থেকে যায়

ঘড়ি, চুড়ি ব্যবহৃত কতকিছু

কিংবা জীবনের এক ধাপ এগিয়ে যাওয়া কতজনার

কিংবা কারো সাথে মিলেমিশে একাকার হয়ে

তাই না?

আচ্ছা, একটা গোলাপ ছুড়ে ফেলে দিয়ে

আর একটা জবা টবে সাজিয়ে বৈচিত্র্য বাড়ে মায়া বাড়ে

পিছুটান কী বাড়ে না?

গোলাপ যখন পুরনো মায়ার কাঁটা হয়ে ওঠে

কণ্ঠনালীতে হৃদয়ের

যন্ত্রণা থেকে কী রেহাই পাওয়ার প্রযুক্তি মেলে সহসা!!

ধীরে ধীরে যে মৃত্যু নিভৃতে ঘটে অহরহ

তা কেন চাইবো আমি

তার চেয়ে তুমিই থেকে যাও

এঁকে যাও ভালোবাসার আলপনা আগের মতোই

রাগ অনুরাগে মান অভিমানের রঙধনু নিয়ে

আমাদেরই সাথে সাথী হয়ে অনন্তকাল

তোমাতেই খুঁজি যেন প্রভাতের আলো

জ্যোৎস্না ধোয়া রাত

নিদাঘ দুপুর আর এ মর্ত্যলোকেই মহাবিশ্বের বিচিত্র আস্বাদ!!

কোথায় যাবে তুমি? এটাই তো তোমার আপন আলয়।

তোমার চুম্বন ছাড়া ধন্য হয় না এ পৃথিবী

তোমারই চুম্বনে চুম্বনে কত রাত ভোর হয় হেসে খেলে

তুমি ছাড়া সৃষ্টিশীল সার্থক হয় না কোনো বাসর

তুমিই তো আসর জমাবে জমজমাট!!

ঈদ সাময়িকী ২০১৬'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj