ধর্মালোচনায় চসিক মেয়র : বুদ্ধের অহিংস বাণী ধারণ করার আহ্বান

শনিবার, ২০ মে ২০১৭

চট্টগ্রাম অফিস : চট্টগাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেছেন, বুদ্ধের বাণী মৈত্রী ও সম্প্রীতির। মানুষে মানুষে সাম্য প্রতিষ্ঠায়, ধর্মে ধর্মে, জাতিতে জাতিতে সৌহার্দ্য প্রতিষ্ঠায় বুদ্ধের বাণী যুগ যুগ ধরে অবদান রেখে যাচ্ছে। মেয়র বলেন, হিংসা, লোভ, কামনা, পরনিন্দা সমাজে ও পরিবারে অশান্তি আনে। বুদ্ধ এ ধরনের কাজ পরিহার করার শিক্ষা দিয়েছেন। মানুষে মানুষে, জাতিতে জাতিতে, ধর্মে ধর্মে সৃষ্ট ব্যবধান, পাশবিকতা, হিংসা, বিদ্বেষ, সন্ত্রাস ও ব্যভিচার থেকে মুক্তির জন্য বুদ্ধের সাম্য, মৈত্রী ও করুণার বাণী ধারণ করে মানুষকে মানবতাকে ভালোবাসার আহ্বান জানান মেয়র।

বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বী সম্প্রদায়ের প্রধান ধর্মীয় উৎসব শুভ বুদ্ধ পূর্ণিমা উপলক্ষে মহামতি গৌতম বুদ্ধের জন্ম, বোধি লাভ ও নির্বাণ লাভের স্মৃতি বিজড়িত দিনটি স্মরণে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন বৌদ্ধ পূর্ণিমা উদযাপন পরিষদের আয়োজনে গতকাল শুক্রবার মুসলিম ইনস্টিটিউট হলে দিনব্যাপী অনুষ্ঠিত ধর্মালোচনায় প্রধান অতিথির ভাষণে মেয়র এ আহ্বান জানান। চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন বৌদ্ধ পেশাজীবী পরিষদের সভাপতি ডা. প্রীতি বড়–য়ার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত ধর্মালোচনা সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা ও বৌদ্ধ কৃষ্টি প্রচার সংঘের মহাসচিব ড. প্রণব কুমার বড়–য়া। এ ছাড়া বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ বৌদ্ধ সমিতির সভাপতি অজিত রঞ্জন বড়–য়া, বাংলাদেশ বুড্ডিষ্ট ফাউন্ডেশনের সভাপতি প্রকৌশলী মৃগাংক প্রসাদ বড়–য়া প্রমুখ।

শেষ পাতা'র আরও সংবাদ