যৌতুকের মামলায় : আত্মসমর্পণের পর আরাফাত সানির জামিন

মঙ্গলবার, ১৮ জুলাই ২০১৭

কাগজ প্রতিবেদক : যৌতুকের মামলায় বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের খেলোয়াড় আরাফাত সানি আদালতে আত্মসমর্পণের পর জামিন নিয়েছেন। গতকাল সোমবার সানি আদালতে হাজির হয়ে জামিনের আবেদন করেন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, গতকাল বেলা ১১টার দিকে আরাফাত সানি খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে হেঁটে আদালতে আসেন। এরপর তিনি তার আইনজীবী মুরাদুজ্জামানের মাধ্যমে ঢাকা মহানগর হাকিম জাকির হোসেন টিপুর আদালতে আত্মসমর্পণ করেন। সানি চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্ত হওয়ায় চিকিৎসকের ব্যবস্থাপত্রের কাগজপত্র আদালতে উপস্থাপন করে আত্মসর্মপণ করেন। আত্মসমর্পণের সঙ্গে সঙ্গেই তিনি জামিনের জন্য আবেদন করেন। সানি তার জামিনের আবেদনে বলেন, চিকুনগুনিয়া জ্বরে আক্রান্ত হওয়ায় গত রোববার আদালতে হাজির হতে পারেননি। কিন্তু আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল থাকায় অসুস্থতা নিয়েও তিনি আত্মসমর্পণ করতে আদালতে হাজির হয়েছেন। শুনানিতে সানির আইনজীবী মুরাদুজ্জামান আদালতকে বলেন, সত্যি সত্যি চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্ত। গ্রেপ্তারি পরোয়ানার খবর পেয়ে আদালতে এসেছেন। এই অবস্থায় তাকে জামিন দেয়া হোক। আদালত সব নথিপত্র খতিয়ে দেখেন এবং শুনানি শেষে সানির জামিন আবেদন মঞ্জুর করেন। শুনানি চলার সময় আরাফাত সানি আদালতের কাঠগড়ায় চুপচাপ দাঁড়িয়ে ছিলেন।

আরাফাত সানির বিরুদ্ধে স্ত্রী নাসরিন আক্তারের দায়ের করা যৌতুকের মামলায় গত রোববার চার্জ গঠন করা হয়। একই সঙ্গে আদালতে উপস্থিত না হওয়ায় গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা হয়।

উল্লেখ্য, আরাফাত সানির দ্বিতীয় স্ত্রী নাসরিন সুলতানা গত ৫ জানুয়ারি তার বিরুদ্ধে মোহাম্মদপুর থানায় তথ্যপ্রযুক্তি আইনে একটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় গত ২২ জানুয়ারি পুলিশ সানিকে সাভার থানাধীন আমিনবাজার এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করে। পুলিশ তাকে এক দিনের রিমান্ডে নেয়। পরের দিন ২৩ জানুয়ারি নাসরিন সুলতানা যৌতুক আইনের ৪ ধারায় অন্য একটি মামলা করেন।

দ্বিতীয় সংস্করন'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj