বন্যার্তদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ

বুধবার, ৩০ আগস্ট ২০১৭

সারা দেশ ডেস্ক : বন্যাদুর্গত মানুষের মাঝে সরকারি ও বেসরকারিভাবে বিভিন্ন স্থানে ত্রাণ বিতরণ করা হয়। ভোরের কাগজ প্রতিনিধিদের পাঠানো সংবাদ-

রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) : রূপগঞ্জ উপজেলায় গত সোমবার দুুপুরে উপজেলার অডিটোরিয়ামে উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) আবুল ফাতেহ মোহাম্মদ শফিকুল ইসলামের কাছে নগদ অর্থ তুলে দেন বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন শিশুসহ সংগঠনের কর্মকর্তারা। এ সময় উপস্থিত ছিলেন সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাইদুল ইসলাম, রূপগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি লায়ন মীর আব্দুল আলীম, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার ওমর ফারুক, একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্প অফিসার ইখতিয়ার উদ্দিন ইমন, রূপগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক খলিল সিকদার প্রমুখ।

নাগরপুর (টাঙ্গাইল) : নাগরপুরে বিএনপির উদ্যোগে ৮শ বানভাসি পরিবারের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়। গত সোমবার উপজেলার কোনাবাড়ী, নন্দপাড়া, ঘোনাপাড়া ও দেওলি গ্রামের অসহায় এসব পরিবারের মাঝে ১০ কেজি করে চাল বিতরণ করা হয়। এ দিন সকালে বেকড়া ইউনিয়নের কোনাবাড়ী এলাকায় ত্রাণ বিতরণকালে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা মো. আব্দুস সালাম, কেন্দ্রীয় বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক এড. আব্দুস সালাম আজাদ, কেন্দ্রীয় বিএনপির পল্লী উন্নয়ন বিষয়ক সম্পাদক এড. গৌতম চক্রবর্তী, জেলা বিএনপির সভাপতি কৃষিবিদ শামসুল আলম তোফা, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আব্দুস সামাদ, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মো. রফিজ উদ্দিন, যুবদলের আহ্বায়ক ফনির হোসেন ভুঁইয়া প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

রাজারহাট (কুড়িগ্রাম) : মানুষ মানুষের জন্য কুড়িগ্রামের রাজারহাটে রিক্রুটিং এজেন্সি এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (রায়াব) উদ্যোগে গত সোমবার উপজেলার ছিনাই ও ঘড়িয়ালডাঙ্গা ইউনিয়নে ১২৫০ জন বানভাসি মানুষের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করা হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন- সাবেক রাজারহাট উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ আবুনুর মো. আক্তারুজ্জামান, রায়াবের সাধারণ সম্পাদক এস এম রফিকুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল গাফফার সেলিম, জেলা পরিষদ সদস্য আব্দুস ছালাম, ইউপি সদস্য আব্দুস সাত্তার বাবু, প্রেসক্লাব রাজারহাট সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম প্রমুখ। অপরদিকে ছিনাই ও বিদ্যানন্দ ইউনিয়ন পরিষদে ৫০০ বানভাসিদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেন রাজধানী ঢাকার ‘মানবতা’ নামের একটি সংগঠন। তারা কাপড়, চাল-ডালসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্র বিতরণ করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন- উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান কোরাইশি লায়লা ফেরদৌসী বীথি, ইউপি চেয়ারম্যান তাইজুল ইসলাম, প্রেসক্লাব রাজারহাটের সাধারণ সম্পাদক মো. রফিকুল ইসলাম প্রমুখ। এদিকে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের আয়োজনে ছিনাই ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে বানভাসি ৭০০ পরিবারের মাঝে ত্রাণ এবং ৬০০ শিক্ষার্থীদের মাঝে কাগজ-কলম বিতরণ করা হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন- রাজারহাট উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. রফিকুল ইসলাম, ছিনাই ইউপি চেয়ারম্যান নুরুজ্জামান হক বুলু, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী রিপন, মনির, রনি, সহযোগিতায় শফিকুল ইসলাম প্রমুখ।

পুঠিয়া (রাজশাহী) : পুঠিয়া উপজেলার শিলমাড়িয়া ইউনিয়নে বন্যাদুর্গত তিনটি গ্রামের ২০১টি পরিবারের মাঝে নিজস্ব অর্থায়নে ত্রাণসামগ্রী ও নতুন কাপড় বিতরণ করেছেন পুঠিয়া-দুর্গাপুরের সাবেক এমপি ও রাজশাহী জেলা আ.লীগের সাবেক সভাপতি এড. তাজুল ইসলাম মোহাম্মদ ফারুক। গত সোমবার বেলা ১০টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত শিলমাড়িয়া ইউনিয়নের ১, ২ ও ৩ নং ওয়ার্ডের চারটি গ্রামের ২০১টি বন্যাদুর্গত পরিবারের মাঝে শুকনো খাবার, কাপড় ও খাবার স্যালাইন বিতরণ করেন। উল্লেখ্য, বাগমারা উপজেলার পাশাপাশি পুঠিয়ার শিলমাড়িয়া ইউনিয়নের ৮টি গ্রামে বন্যার পানি ঢুকেছে। প্রতিদিনই বাড়ছে পানি। এর মধ্যে গোবিন্দপাড়া, সাতঘোষপাড়া, বাজে সাতঘোসপাড়া, শ্রীরামপুর গ্রাম পুরো প্লাবিত হয়েছে। আর মঙ্গলপাড়া, সাধনপুর, কৃষ্ণবটি ও জগদিশপুর গ্রামের আংশিক প্লাবিত হয়েছে। শতশত ঘরবাড়িতে পানি ঢুকে পড়েছে। ওই ৮টি গ্রামের প্রায় তিন হাজার মানুষ পনিবন্দি হয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছে।

বাঘা (রাজশাহী) : বাঘা উপজেলার চকরাজাপুর ইউনিয়নের বন্যার্ত ২ শতাধিক পরিবারের সদস্যদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেন রাজশাহী জেলা যুবলীগসহ দলীয় নেতাকর্মীরা। ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের সদস্যদের মাঝে চাল, ডাল, লবণ, তেল, আলু ছাড়াও নগদ টাকা বিতরণ করেন। গত সোমবার দুপুরে চকরাজাপুর ইউনিয়নের দিয়ার কাদিরপুর, চকরাজাপুর, লক্ষীনগর, চোমাদিয়া এলাকায় ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করেন রাজশাহী জেলা যুবলীগের সভাপতি আবু সালেহ, সাধারণ সম্পাদক খালেদ ওয়াসি কেটুর নেতৃত্বে উপস্থিত ছিলেন জেলা যুবলীগ সাবেক সহসভাপতি আলমগীর মৃশেদ, বাঘা থানা যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক মোকাদ্দেস আলী প্রমুখ।

কুড়িগ্রাম : বিভিন্ন সংগঠন, ব্যক্তি ও বিজিবির উদ্যোগে বন্যাদুর্গত মানুষের মাঝে ত্রাণ তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে। গত সোমবার দুপুরে উলিপুর উপজেলার বুড়াবুড়ি ইউনিয়নের দেলদারগঞ্জ ও জনতা বাজারে ত্রাণ বিতরণ করেন এনাম এন্টারপ্রাইজ রংপুরের স্বত্বাধিকারী মো. আলতাব হোসেন । বন্যাদুর্গত ১ হাজার মহিলা ও শিশুদের মাঝে কাপড় ও বিস্কুট বিতরণ করেন তিনি। অন্যদিকে বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন রংপুর রিজিয়নের ডিআরসির উদ্যোগে অস্ট্রেলিয়া প্রবাসীর সহায়তায় কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী উপজেলার নারায়ণপুরে ২ শতাধিক অসহায় বন্যাদুর্গত মানুষের মাঝে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে। এ সময় উপস্থিত ছিলেন রংপুরের ডেপুটি সেক্টর কমান্ডার কর্নেল মো. মাহবুবুর রহমান পিএসসি এবং ৪৫ বিজিবির পরিচালক লে. কর্নেল আউয়াল উদ্দিন আহমেদসহ বিজিবির সদস্যরা। ত্রাণসামগ্রীর মধ্যে রয়েছে চাল, ডাল, সেমাই, চিনি, চিঁড়া, গুড়, তেল, গরম মসলা পেঁয়াজ, আদা, রসুন ও খাওয়ার স্যালাইন।

ফুলছড়ি (গাইবান্ধা) : উপজেলার বন্যাদুর্গত দুটি ইউনিয়নে রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির উদ্যোগে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে। বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি গাইবান্ধা জেলা ইউনিট গত সোমবার গাইবান্ধার ফুলছড়ি উপজেলার গজারিয়া ও ফুলছড়ি ইউনিয়নের বন্যাদুর্গত ৬৫৩টি পরিবারের মাঝে চাল ১৫ কেজি, মসুর ডাল ২ কেজি, সয়াবিন ১ লিটার, চিনি ১ কেজি, সুজি ১ কেজি, লবণ ১ কেজি, খাবার স্যালাইনের ১০টি প্যাকেটসহ একটি প্যাকেজ জরুরি ত্রাণ হিসেবে বিতরণ করা হয়। সাবেক ফুলছড়ি উপজেলা পরিষদ চত্বরে বানভাসিদের মাঝে এসব ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করেন রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি গাইবান্ধা জেলা ইউনিট চেয়ারম্যান ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আতাউর রহমান সরকার আতা।

এদিকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ত্রাণ তহবিল হতে ডেপুটি স্পিকার এডভোকেট ফজলে রাব্বী মিয়া এমপি কর্তৃক সংগৃহীত গাইবান্ধার ফুলছড়ি উপজেলার গজারিয়া ইউনিয়নের বন্যাদুর্গত ৬০০টি পরিবারের মাঝে ১০ কেজি করে চাল ও ১ কেজি করে ডাল বিতরণ করা হয়েছে। ফুলছড়ি উপজেলার তিস্তামুখঘাট এলাকায় বন্যাদুর্গত এসব মানুষের হাতে ত্রাণ তুলে দেন ফুলছড়ি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান।

মনোহরগঞ্জ (কুমিল্লা) : উপজেলার সরসপুর ইউনিয়নের বাতাবাড়িয়া ৭নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের উদ্যোগে বন্যাদুর্গতদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়। ওই ওয়ার্ডের কয়েকজন নেতাকর্মীর নিজস্ব অর্থায়নে গত শনিবার প্রায় তিন শতাধিক পরিবারের মধ্যে চাল, চিঁড়া-মুড়ি, গুড়, টিন ও চৌকি বিতরণ করা হয়। স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা আবুল কাশেম মোল্লার সভাপতিত্বে ও আওয়ামী লীগ নেতা সাইফুল ইসলাম বাবরের সঞ্চালনায় ত্রাণ বিতরণী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মাস্টার আবদুল কাইয়ুম চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক মো. জাকির হোসেন, ডা. নূর উন নবী মোহাম্মদ, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের আহ্বায়ক মো. সেলিম কাদের চৌধুরী প্রমুখ।

দিনাজপুর : গত সোমবার কেন্দ্রীয় জিয়া পরিষদের উদ্যোগে শতাধিক বানভাসি পরিবারের মাঝে নগদ টাকা বিতরণ করা হয়। বিকেল সাড়ে ৪টায় লোক ভবন প্রাঙ্গণে দিনাজপুর জিয়া পরিষদের আয়োজনে ও কেন্দ্রীয় জিয়া পরিষদের সহযোগিতায় শতাধিক পরিবারের মাঝে নগদ টাকা বিতরণ করা হয়। এই ত্রাণ বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় জিয়া পরিষদের মহাসচিব প্রফেসর ড. এমতাজ হোসেন।

সারাদেশ'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj