ডিগ্রি পাবেন ১৭৭২ শিক্ষার্থী : স্টামফোর্ড ইউনিভার্সিটি সমাবর্তন মঙ্গলবার

রবিবার, ১৪ জানুয়ারি ২০১৮

কাগজ প্রতিবেদক : স্টামফোর্ড ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশের সমাবর্তন আগামী মঙ্গলবার অনুষ্ঠিত হবে। ২০১৮ সালে ১৪টি বিভাগের ১ হাজার ৭৭২ শিক্ষার্থীকে ¯œাতক ও ¯œাতকোত্তর ডিগ্রি প্রদান করা হবে। সমাবর্তনে সভাপতি হিসেবে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ এবং বক্তা হিসেবে উপস্থিত থাকবেন প্রফেসর ড. এ কে আজাদ চৌধুরী। রাজধানীর একটি হোটেলে মিট দ্য প্রেস অনুষ্ঠানে গতকাল শনিবার এ তথ্য জানানো হয়।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, এবারে সমাবর্তনে ৫টি ফ্যাকাল্টি থেকে ৫ জন চ্যান্সেলরকে স্বর্র্ণপদক ও ২০ জনকে ভাইস চ্যান্সেলর পদক প্রদান করা হবে। সমাবর্তনে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের চেয়ারম্যান প্রফেসর আব্দুল মান্নান ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় বাংলাদেশ এসোসিয়েশনের এক্সিকিউটিভ কমিটির সদস্য এ কে এম এনামুল হক শামীম উপস্থিত থাকবেন।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন- স্টামফোর্ড ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশের বোর্ড অব ট্রাস্টির চেয়ারম্যান মিসেস ফাতিনাজ ফিরোজ, ইউনিভার্সিটির উপাচার্য অধ্যাপক মুহাম্মদ আলী নকী, বোর্ড অব ট্রাস্টির সদস্য মাহবুব আলম জাকির, মো. জাকির হোসাইন, এস এম ইলিয়াস, ড. ফারাহনাজ ফিরোজ, ব্যারিস্টার এ কে এম ফারহান, মিসেস রুমানা হক রিতা, আকতার হোসাইন লিটন। আরো উপস্থিত ছিলেন- ইউনিভার্সিটির উপ-উপাচার্য প্রফেসর ড. কে মউদুদ ইলাহী, এমিরেটাস প্রফেসর ড. এম ফিরোজ আহমেদ।

সমাবর্তনে আগ্রহী শিক্ষার্থীদের দ্রুত রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন করতে আহ্বান জানান বোর্ড অব ট্রাস্টির চেয়ারম্যান মিসেস ফাতিনাজ ফিরোজ। তিনি সমাবর্তনকে বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য দারুণ ইতিবাচক দিক হিসেবে উল্লেখ করেন।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়েছে, উচ্চশিক্ষা ও শিক্ষার গুণগত উৎকর্ষ সাধনে ১৯৯৪ সালে যাত্রা শুরু করা স্টামফোর্ড ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশের ১৪টি বিভাগের ২৬টি প্রোগ্রামে শিক্ষা কার্যক্রম চালু রয়েছে। স্টামফোর্ডের অনেক শিক্ষার্থী সুনামের সঙ্গে দেশের বিভিন্ন সেক্টরে কাজ করছে, যা বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য অনেক গর্বের।

স্টামফোর্ড কনভোকেশন-২০১৮ ঘিরে সবার সহযোগিতা কামনা করেন উপাচার্য অধ্যাপক মুহাম্মদ আলী নকী। এ ক্ষেত্রে উচ্চশিক্ষা নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় ছেড়ে যাওয়া শিক্ষার্থীদের প্রতি বিশেষ গুরুত্বারোপ করেন তিনি।

এই জনপদ'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj